NO MORE SEXUAL HARRASMENT AND/OR EXPLOITATION IN UNIVERSITY CAMPUS

NO MORE SEXUAL HARRASMENT AND/OR EXPLOITATION IN UNIVERSITY CAMPUS

0 have signed. Let’s get to 100!
At 100 signatures, this petition is more likely to be featured in recommendations!
ATANU GHOSH started this petition to VICE CANCELLOR and

শ্ৰীযুক্ত নিমাইচন্দ্র সাহা সমীপেষু,

মাননীয়

উপাচার্য শ্রীযুক্ত নিমাইচন্দ্র সাহা বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়,

রাজবাটী, বর্ধমান-৭১৩১০৪

সবিনয় নিবেদন-

মহাশয়,

আমাদের চারদিকের স্বচ্ছতাকে এক অদ্ভুত আঁধার কালিমালিপ্ত করছে। না, করোনা গ্রাসের কথা বলছি না স্যার। বলছি—আজ যে বন্ধু, কাল সে বন্ধু থাকছে না। বন্ধু ক্ষমতার অপব্যবহারে নানাবিধ অনৈতিক, বে-আইনি, দুর্নীতিগ্রস্ত কাজকর্মে জড়িয়ে পরছেন ।

সম্প্রতি বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন অধ্যাপকের দু'টি অডিওক্লিপ আমাদের নজরে এসেছে। এই ক্লিপ দু'টি আমাদের হতভম্ব এবং মর্মাহত করেছে। এই মর্মাহত হওয়ার একটাই কারণ এই ক্লিপ দুটি আমাদের অত্যন্ত পরিচিত স্বজন অধ্যাপক ও কবি অংশুমান কর-কে নিয়ে। একটি ছাত্রী উচ্চশিক্ষায় ভালাে ফলাফলের আকাঙ্ক্ষায় অধ্যাপকের সঙ্গে অবৈধ্য সম্পর্কে জড়িয়ে পরেছে। এই অডিও ক্লিপ থেকে আমরা আরও জানতে পারি এই ছাত্রীটি তার প্রথম নয়, এর আগেও তিনি একাধিক ছাত্রীকে উচ্চশিক্ষায় কেরিয়ার নির্মাণের টোপ দিয়ে শয্যাসঙ্গিনী করেছেন। অধ্যাপকের স্ত্রী শিক্ষক-ছাত্রীর এই অবৈধ সম্পর্কের র‍্যাকেটটি ভাঙার চেষ্টা করেও ভাঙতে পারেননি। এরই মধ্যে অধ্যাপকের মেধাবী কিশােরী কন্যার আর্তনাদ আমরা শুধু বিচলিত নয়, অরুত্তুদ বেদনায় ক্লিষ্ট।(বিঃদ্রঃ-কোন অডিও ক্লিপের সত্যতা আমরা যাচাই করিনি, আমাদের চোখের সামনে যা ভেসে এসেছে আমরা তার ভিত্তিতেই আমাদের গর্বের বিশ্ববিদ্যালয়ের সম্মান রক্ষার্থে আপনার দারস্থ হচ্ছি।)      

এই অধ্যাপকের একান্ত ব্যক্তিগত জীবনাচরণ বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের সারস্বত সাধনাকে কলুষিত করেছে এ বিষয়ে কোন সন্দেহ নেই। কিন্তু অধ্যাপক শ্রী কর সম্পর্কিত দ্বিতীয় ক্লিপটি আমাদের বিভ্রান্ত এবং বিস্মিত করে। কেননা প্রথম ক্লিপের ছাত্রীটি এখানে বলছে—আমাদের স্যার এরকম নয়, আমি মিথ্যা অভিযােগ করেছি। রাতারাতি পাল্টে যাওয়া ছাত্রীটির স্বীকারােক্তির নেপথ্যে কি কোন রহস্য আছে? তবে প্রথম ক্লিপে ছাত্রীর অভিযােগে অধ্যাপক অংশুমান করের ভীত সন্ত্রস্ত কণ্ঠস্বর, কণ্ঠে ফাঁস নির্মিত খক্খক কাশি এবং তার স্ত্রীর জ্বালময়ী বাক্য স্রোত যে আমাদের মর্মাহত করলাে তা বন্ধু বাৎসল্যের মায়ামূচ্ছনাছাড়া আর কিছু নয়!

একজন শিক্ষকের দাম্পত্য কলহ, ব্যক্তিগত জীবনযাপন সমষ্টির যাতে ক্ষতি না করে, শিক্ষা জগতকে যাতে কালিমালিপ্ত না করে সে দিকে কঠোর নজর রেখে এই কলঙ্কিত অধ্যায়টির সঠিক তদন্ত হােক। প্রকৃত দোষী দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি পাক।

ভবিষ্যতে বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের মতাে শিক্ষা ক্ষেত্রে যৌন নিগ্রহের ঘটনা আর না ঘটে সেদিকে সজাগ আইনি ব্যবস্থা চালু রাখুন, আপনার কাছে আমাদের একান্ত অনুরােধ। কালিমামুক্ত হয়ে আমাদের গর্বের সারস্বতপীঠ বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের সুনাম অক্ষুন্ন থাকুক এই আমাদের প্রার্থনা।

                                                         বিনীত                                                                                                           চেতনা সম্বল প্রতিবাদী মঞ্চের পক্ষে

To,

The Vice-Chancellor,

The University of Burdwan Rajbati, Burdwan-713104

Respected Sir,                                                                                                              A strange darkness has since seized with attempts to taint the very lucid ambience of this Noble Institution. Sir,we are not referring to the onslaught of the Covid 19 virus currently taking its toll at will.Our concern is yet another dreaded virus that has invaded the Campus which,if not taken care of with iron hands,may soon turn pandemic.Today's friend turns tomorrow's FIEND.And this friend,with power at his disposal,getting involved in numerous unethical,illegal and corrupt deeds.

We have in hand two recent audio-clips of one professor of the University of Barddhaman.The contents of these two audio-clips left all of us utterly perplexed and mortified.It is more so shocking and painful because the man in question is none other but our very known professor and poet Anshuman Kar.He duped a number of female student assuring them favour,higher marks,good ranks and such other favours to boost their carrier, not on merits but by establishing illicit sexual relationship with him.The audio-clip further digs that this girl alone was not the victim,numerous other girl students were lured and laid into the bed to quench his thrust of lust. The wife of Prof.Kar tried her best to crack and break this illicit sexual racket but failed to do anything. Their brilliant daughter's scream not only moved us but left us in pains.

The very own lifestyle of Prof.Kar,in public domain and the very sacred Campus,has tarnished our University,there's no dispute about it.But the second such clip reveals that the student turns hostile and say that her statements/confessions, which she had made only a few hours back,were her own fabrication and were all bogus. This backtrack points at his power that forces the victim to turn the tide.But again,we find Prof.Kar's panic-stricken voice while defending himself and a distorted cough voice thereafter when he pretended embracing suicide.Mrs.Kar was at her peak of fury.....a hapless mother,a hapless wife.We were left helpless,could only repent of our inability to offer help to the either side because of the nature of the event.

We now request you,Sir,to protect this Noble Institution. The University of Barddhaman from all sorts of mischievous activities.The conjugal conflict and personal lifestyle of this teacher must not affect the community,as a whole,and academic fraternity in particular. You may please take immediate steps and ensure that the sanctity and prestige of our University is best protected by rendering exemplary punishment to the offender. Please also ensure that the University Campus no more gets tainted by sexual harassment and/or exploitation. A very alert, effective and responsible vigil be enforced immediately supported b a strong law to keep such culprits at bay.

 Thanking you with kindest regards,

Yours sincerely, for and on behalf of                   

CHETANSAMBAL PRATIBADI MANCHA

0 have signed. Let’s get to 100!
At 100 signatures, this petition is more likely to be featured in recommendations!